আজ: ২৫শে জুন, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, শনিবার, ১১ই আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২৬শে জিলকদ, ১৪৪৩ হিজরি, দুপুর ১:০৮
সর্বশেষ সংবাদ
আইন ও বিচার, জেলা সংবাদ, ঢাকা বিভাগ, সারাদেশ শ্রীপুরে নিবন্ধন না থাকায় তিনটি হাসপাতালকে জরিমানা ও কার্যক্রম বন্ধের নির্দেশ 

শ্রীপুরে নিবন্ধন না থাকায় তিনটি হাসপাতালকে জরিমানা ও কার্যক্রম বন্ধের নির্দেশ 


পোস্ট করেছেন: অনলাইন ডেক্স | প্রকাশিত হয়েছে: ২৮/০৫/২০২২ , ২:০৪ অপরাহ্ণ | বিভাগ: আইন ও বিচার,জেলা সংবাদ,ঢাকা বিভাগ,সারাদেশ


শ্রীপুর প্রতিনিধিঃ গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলায় নিবন্ধন না থাকা ও মেয়াদোত্তীর্ণ নিবন্ধনে হাসপাতাল পরিচালনা করায় তিনটি হাসপাতালকে জরিমানা ও দুই হাসপাতালের কার্যক্রম বন্ধের নির্দেশ দিয়েছে ভ্রাম্যমান আদালত।
শুক্রবার (২৭ মে) বেলা ১২টায় উপজেলার মাওনা চৌরাস্তায় তিনটি হাসপাতালে অভিযান চালায় ভ্রাম্যমান আদালত। ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করেন শ্রীপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ তরিকুল ইসলাম।
এসময় শ্রীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য, পরিবার ও পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ প্রণয় ভুষণ দাস উপস্থিত ছিলেন। ভ্রাম্যমান আদালত সুত্রে জানা গেছে, স্বাস্থ্য বিভাগের নির্দেশ মোতাবেক শ্রীপুর উপজেলার হাসপাতাল গুলোতে অভিযান পরিচালনা করা হয়।
এসময় মাওনা পপুলার মেডিকেল সেন্টার ও আনোয়ারা ডায়াগনস্টিক সেন্টারের নিবন্ধন না থাকায় পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করে কার্যক্রম বন্ধের নির্দেশ দেয়া হয়। এছাড়াও কোয়ালিটি ডায়াগনস্টিক সেন্টারের নিবন্ধন মেয়াদোত্তীর্ণ থাকায় তিন হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।
শ্রীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য, পরিবার ও পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ প্রণয় ভুষণ দাস বলেন, গত বুধবার স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নির্দেশনা মোতাবেক ৭২ ঘন্টার মধ্যে সারা দেশের সব অবৈধ ক্লিনিক ও ডায়াগনস্টিক সেন্টার বন্ধের নির্দেশনা দেয়া হয়। এরই প্রেক্ষিত্রে শুক্রবার শ্রীপুর উপজেলার , মাওনা পপুলার মেডিকেল সেন্টার, আনোয়ারা ডায়াগনস্টিক সেন্টার ও কোয়ালিটি ডায়াগনস্টিক সেন্টারে অভিযান চালানো হয়। এসময় মাওনা পপুলার মেডিকেল সেন্টার, আনোয়ারা ডায়াগনস্টিক সেন্টারে কোন নিবন্ধন সনদ দেখাতে ব্যর্থ হয়। এছাড়া কোয়ালিটি ডায়াগনস্টিক সেন্টারের মেয়াদোত্তীর্ণ নিবন্ধনে হাসপাতাল কার্যক্রম পরিচালনা করছিল।
ভ্রাম্যমান আদালতের বিচারক শ্রীপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ তরিকুল ইসলাম বলেন দুইটি হাসপাতালে, নিবন্ধন সনদ দেখাতে ব্যর্থ হওয়ায় প্রত্যেককে পাঁচ হাজার টাকা ও একটি ডায়াগনস্টিক সেন্টারের নিবন্ধন মেয়াদোত্তীর্ণ থাকায় তিন হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। স্বাস্থ্য, পরিবার ও পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ প্রণয় ভুষণ দাস আরও বলেন, উপজেলার প্রত্যেকটি হাসপাতালের কার্যক্রমে স্বচ্ছতা ফিরিয়ে আনতে আমরা বরাবরই কাজ করে যাচ্ছি। সে সকল হাসপাতাল সরকারী নির্দেশনা মেনে পরিচালনা করছে না তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। এছাড়াও রোগ নির্ণয়ে বিভিন্ন পরীক্ষা-নিরীক্ষার বিষয়ে সরকার নির্ধারিত মূল্য নেয়া হচ্ছে কিনা তারও খোঁজ নেয়া হচ্ছে।

Comments

comments

Close