আজ: ২১শে মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, শনিবার, ৭ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২০শে শাওয়াল, ১৪৪৩ হিজরি, রাত ৩:৩৫
সর্বশেষ সংবাদ
জেলা সংবাদ, প্রধান সংবাদ শেকড়ের টানে ৭৩ বছর পর জন্মভূমে এলেন মন্ত্রী

শেকড়ের টানে ৭৩ বছর পর জন্মভূমে এলেন মন্ত্রী


পোস্ট করেছেন: মতপ্রকাশ ডেস্ক | প্রকাশিত হয়েছে: ০৪/০৪/২০২২ , ১:১০ পূর্বাহ্ণ | বিভাগ: জেলা সংবাদ,প্রধান সংবাদ


বিপ্লব নিয়োগী তন্ময়: শিকড় ছাড়া যেমন গাছ বাঁচে না, তেমনি শিকড় না চিনলে বাঁচে না মানুষের সংস্কৃতি ও আত্মপরিচয়। এবার নিজের শিকড়ের সন্ধান পেতে দীর্ঘ ৭৩ বছর পর ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগরে ছুটে গেলেন ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার।

শনিবার (২ এপ্রিল) সকালে হেলিকপ্টারযোগে তার পৈত্রিক বাড়ি নবীনগর উপজেলার কৃষ্ণনগর ইউনিয়নের লক্ষীপুর গ্রামে যান। এ সময় তিনি আত্মীয়-স্বজনদের সাথে কথা বলেন। দুপুরে পিতার শিক্ষা জীবনের স্কুল, নবীনগর উপজেলার শ্যামগ্রাম মোহিনী কিশোর স্কুল অ্যান্ড কলেজের একাদশ শ্রেণির নবীনবরণ ও বার্ষিক পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে উপস্থিত হন মন্ত্রী।

মন্ত্রীকে নবীনগর প্রেসক্লাব ও সরকারি বিভিন্ন দফতরের কর্মকর্তা এবং বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা ফুলেল শুভেচ্ছা জানান।

শ্যামগ্রাম মোহিনী কিশোর স্কুল এন্ড কলেজ মাঠে গভর্নিংবডির সভাপতি ও ডাক, টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. খলিলুর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনাসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য দিতে গিয়ে মন্ত্রী বলেন, ‘নবীনগরের সাথে আমার গভীর সম্পর্ক, যা বলে শেষ করা যাবে না। আমি ৭৩ বছর বয়সে এসে, আমার দাদার বাড়ি খুঁজে বের করতে পারলাম। আমার উত্তরাধিকার সূত্রে শিকড়টা এই নবীনগরে।’

মন্ত্রী আরো বলেন, ’আমার বাবা ১৯৭৮ সালে মারা গেছেন। তিনি এই শ্যামগ্রামে কোনো এক বাড়িতে লজিং থেকে মোহিনী কিশোর স্কুল অ্যান্ড কলেজে লেখাপড়া করেছেন।’ নবীনগর উপজেলাকে টেলিটকের নেটওয়ার্কের আওতায় আনা হবে বলে জানান তিনি।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন- স্থানীয় এমপি মোহাম্মদ এবাদুল করিম বুলবুল, বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশনের চেয়ারম্যান শ্যামসুন্দর শিকদার, বিটিসিএল-এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. রফিকুল মতিন, টেলিটকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ শাহাবুউদ্দিন, জেলা প্রশাসক মো. শাহগীর আলম, পুলিশ সুপার মো. আনিসুর রহমান, উপজেলা চেয়ারম্যান মনিরুজ্জামান মনির, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সিরাজুল ইসলাম, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা একরামুল ছিদ্দিক।

অনুষ্ঠান শেষে শিক্ষার্থীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করা হয়।

Comments

comments

Close