আজ: ৬ই ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, সোমবার, ২১শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২রা জমাদিউল আউয়াল, ১৪৪৩ হিজরি, রাত ৮:৪৩
সর্বশেষ সংবাদ
খেলাধূলা বেনফিকার সাথে ড্র’য়ে দ্বিতীয় রাউন্ডে যাওয়ার আশা ফিকে হয়ে গেল বার্সার

বেনফিকার সাথে ড্র’য়ে দ্বিতীয় রাউন্ডে যাওয়ার আশা ফিকে হয়ে গেল বার্সার


পোস্ট করেছেন: মতপ্রকাশ ডেস্ক | প্রকাশিত হয়েছে: ২৪/১১/২০২১ , ৫:১৩ অপরাহ্ণ | বিভাগ: খেলাধূলা


শামসুল আলম সবুজ:

বার্সেলোনার হয়ে লা লিগা ক্যাম্পেইনের প্রথম ম্যাচে উতরে গেলেও, চ্যাম্পিয়নস লিগের অভিষেকে হোঁচট খেলেন জাভি। ঘরের মাঠে জিততেই হবে এমন সমীকরণের খেলায় বেনফিকার সঙ্গে গোলশূন্য ড্র করেছে জাভির শিষ্যরা। আর তাতেই শেষ ষোলোয় খেলা অনেকটাই অনিশ্চিত হয়ে গেছে কাতালানদের জন্য।

দ্বিতীয় রাউন্ডে যাওয়ার জন্য এখন বায়ার্ন মিউনিখকে হারাতেই হবে জাভিদের। সেটাও আবার বায়ার্নের ডেরা অ্যালিয়াঞ্জ অ্যারেনায়। শুধু নিজেদের ওই ম্যাচে জিতলেই হবে না বার্সার, সাথে সাথে এই দোয়াও করতে হবে যেনো আরেক ম্যাচে বেনফিকা কোনোভাবেই কিয়েভকে হারাতে না পারে। যদি বার্সা মিউনিখের সঙ্গে ড্র করে আর ওইদিকে বেনফিকা কিয়েভকে হারিয়ে দেয় তাহলে বার্সেলোনার ইউরোপা লীগ কনফার্ম।

চ্যাম্পিয়নস লিগের চলতি মৌসুমে আগের ৪ ম্যাচে ২ গোল করা বার্সেলোনাকে আজকে ৩-৪-২-১ ফর্মেশনে খেলিয়েছেন জাভি। বল দখল, ম্যাচের নিয়ন্ত্রণ এবং গোলের সুযোগ তৈরি সবকিছুতেই এগিয়ে ছিল কাতালান ক্লাবটি। তবে তাতেও ভাগ্য বদলায়নি পিকে-আলবাদের। গোল না হলেও বেশ উপভোগ্য খেলা উপহার দিয়েছে বেনফিকা ও বার্সেলোনা। দুই দলই গোলের সুযোগ তৈরি করেছে সমানতালে। তবে বৈধ গোল আদায় করতে পারেনি কেউ। দুই দলের দুটি গোল বাতিল হয়েছে অফসাইডের কারণে। যা এসেছিল দুই দলের ডিফেন্ডার নিকোলাস ওটামেন্ডি ও রোনাল্ড আরাউহোর কাছ থেকে।

বার্সেলোনার হয়ে গোলের সবচেয়ে কাছে গিয়েছিলেন উইংব্যাক ইউসুফ দেমীর। সেটাও দুই দুইবার, ম্যাচের শুরুতে আর প্রথমার্ধের শেষ মুহূর্তে। কিন্তু প্রথমবার বল বাইরে মারলেও পরেরবার পোস্ট বাঁধা হয়ে দাঁড়ানোয় কপাল ফেরেনি বার্সার।

সেকেন্ড হাফে পাল্টা আক্রমণে সবচেয়ে বড় সুযোগটা তৈরি করেছিল বেনফিকা। বার্সার কাছ থেকে বল নিয়ে ওয়ান টু ওয়ান খেলে গোলকিপার আন্দ্রে টার স্টেগানকে ছিটকে ফেলে পর্তুগিজ ক্লাবটি। গোলপোস্ট ফাঁকা পেয়ে যান সুইস ফরোয়ার্ড হ্যারিস সেফেরোভিচ। কিন্তু তাতেও বল জালে জড়াতে ব্যর্থ হন তিনি। যেটাকে বলা হচ্ছে মৌসুমের সবচেয়ে বড় মিস। কেননা এই মিসের কারণেই পরের রাউন্ড নিশ্চিত করতে পারেনি তাঁর দল। ফলে শেষ ষোলো নিশ্চিতের জন্য শেষ ম্যাচ পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হচ্ছে তাঁদের।

Comments

comments

Close