আজ: ৩রা ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, শুক্রবার, ১৮ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৮শে রবিউস সানি, ১৪৪৩ হিজরি, সন্ধ্যা ৬:৫৪
সর্বশেষ সংবাদ
খেলাধূলা, প্রধান সংবাদ হার দিয়ে বিশ্বকাপ শুরু হলো বাংলাদেশের

হার দিয়ে বিশ্বকাপ শুরু হলো বাংলাদেশের


পোস্ট করেছেন: মতপ্রকাশ ডেস্ক | প্রকাশিত হয়েছে: ১৮/১০/২০২১ , ২:০২ পূর্বাহ্ণ | বিভাগ: খেলাধূলা,প্রধান সংবাদ


শামসুল আলম সবুজ:

খুব বাজে একটা দিন গেলো টাইগারদের। টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সুপার টুয়েলভ খেলার মিশনে নিজেদের উদ্বোধনী ম্যাচে পরাজয়ের স্বাদ পেয়েছে টিম বাংলাদেশ। দূর্বল শক্তির স্কটল্যান্ডের কাছে ৬ রানের হার দিয়ে বিশ্বকাপ শুরু করলো মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের দল।

শুরুতে খাদের কিনারায় চলে যাওয়া স্কটল্যান্ড ক্রিস গ্রেভসের ব্যাটে ঘুরে দাঁড়ায়। তাঁদের ১৪১ রানের লক্ষ্য ছুঁতে ব্যর্থ হন সাকিব-মুশফিক-রিয়াদরা। উদ্বোধনী ম্যাচে হোঁচট খায় টাইগাররা, ৬ রানে পরাজয়ের লজ্জা নিয়ে মাঠ ছাড়তে হয় বাংলাদেশকে।

টসে জিতে ফিল্ডিং নেওয়া মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের মান রেখেছেন স্পিনাররা। অথচ প্রথম ছয় ওভার বল করেছেন তাসকিন-মুস্তাফিজ-সাইফুদ্দিনরা। তাসকিনকে সমীহ করলেও মুস্তাফিজকে আক্রমণ করেছে স্কটল্যান্ড। আর বাংলাদেশকে প্রথম উইকেট এনে দেন ডানহাতি পেসার সাইফুদ্দিন। দারুণ এক ইয়র্কারে স্কটল্যান্ডের অধিনায়ক কাইল কোয়েতজারকে বোল্ড করেন তিনি।

এরপর দুই প্রান্তে স্পিনার নিয়ে আসেন রিয়াদ। দুইজন মিলে হাত ঘোরান টানা ৬ ওভার। প্রথম ওভারেই ২ উইকেট তুলে নেন মাহেদি হাসান। দুইজন ব্যাটসম্যানকে আউট করে অনন্য রেকর্ড গড়েন সাকিব। লাসিথ মালিঙ্গাকে পেছনে ফেলে আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টিতে হয়ে যান সর্বোচ্চ উইকেটের মালিক। তাঁদের করা ৬ ওভারে মাত্র ১৬ রান নিয়ে ৫ উইকেট খোয়ায় স্কটল্যান্ড। ৫৩ রানে ৬ উইকেট হারিয়ে দল যখন বিপদে তখন ক্রিস গ্রিভসের ব্যাট পথ দেখায় স্কটিশদের। তাঁর ২৮ বলে ৪৫ রানের সুবাদে ঘুরে দাঁড়ায় স্কটল্যান্ড। শেষদিকে মার্ক ওয়াটকে নিয়ে তাঁর ৫১ রানের জুটিতে ১৪০ রানে শেষ হয় স্কটল্যান্ডের ইনিংস।

জবাবে ওপেনাররা ব্যর্থ হলে বিপদ বাড়ে টাইগারদের। দ্বিতীয় ওভারে উইকেট দিয়ে আসেন সৌম্য সরকার। এরপর আরেক ওপেনার লিটন বিদায় নিলে দায়িত্ব বর্তায় সাকিব ও মুশফিকের কাঁধে। পাওয়ার প্লে শেষে বাংলাদেশের স্কোর দাঁড়ায় ২৫/২। সেখান থেকে জুটি গড়েন সাকিব-মুশফিক। তাঁদের ৪৭ রানের পার্টনারশিপে দল যখন জয়ের স্বপ্নে বিভোর ঠিক তখনই গ্যালারীর পথে হাঁটা ধরেন সাকিব। মুশফিকও টিকতে পারেননি বেশিক্ষণ। তাঁদের হন্তারকের নাম ক্রিস গ্রিভস, যার ব্যাটে ফাইটিং স্কোর করেছিল স্কটল্যান্ড।

৩৮ রান করে মুশফিক বিদায় নিলে আফিফ-রিয়াদরা প্রতিরোধের চেষ্টা করেন। সেটাও ভেস্তে গেলে মাহেদি-সাইফুদ্দিনের যুগলবন্দি শেষ পর্যন্ত লড়াই চালিয়ে যায়। তবে শেষ ওভারে ২৪ রান তোলার সামর্থ্য তাঁদের হয়নি। শেষ ৬ বল থেকে ১৭ রান নিতে সক্ষম হন তাঁরা। ফলে ৬ রানের পরাজিত হয়ে বিশ্বকাপের শুরুটা বেশ খারাপই হয় বাংলাদেশের।

Comments

comments

Close