আজ: ৮ই মে, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, শনিবার, ২৫শে বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৬শে রমজান, ১৪৪২ হিজরি, সকাল ১০:৩৮
সর্বশেষ সংবাদ
খেলাধূলা অভিষিক্ত জয়াবিক্রমার স্পিন বিষে বাংলাদেশের বিশাল পরাজয়

অভিষিক্ত জয়াবিক্রমার স্পিন বিষে বাংলাদেশের বিশাল পরাজয়


পোস্ট করেছেন: মতপ্রকাশ অনলাইন | প্রকাশিত হয়েছে: ০৩/০৫/২০২১ , ৬:০৮ অপরাহ্ণ | বিভাগ: খেলাধূলা


শামসুল আলম সবুজ:

পাল্লেকেলেতে প্রথম টেস্টে দাপুটে খেলে ড্র করা বাংলাদেশ দ্বিতীয় টেস্টে সামর্থ্যের পুরোটা দিতে ব্যর্থ হয়েছে। প্রথম ইনিংসে শ্রীলঙ্কার করা ৪৯৩ রান দুই ইনিংস ব্যাট করেও টপকাতে পারেনি টাইগার ব্যাটসম্যানরা। বাঁহাতি স্পিনার প্রবীন জয়াবিক্রমার দুর্দান্ত ঘূর্ণিতে বিধ্বস্ত হয়ে ২০৯ রানের বিশাল ব্যবধানে হেরেছে বাংলাদেশ। প্রথম শ্রীলঙ্কান বোলার হিসেবে অভিষেক ম্যাচে ১১ উইকেট পেয়েছেন জয়াবিক্রমা।

দুই দলের মধ্যকার প্রথম টেস্ট ড্র হয়েছিল। ফলে মাত্র ৩০ পয়েন্ট নিয়ে শেষ হলো বাংলাদেশের টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ। আর এই টেস্ট জিতে ১-০ তে সিরিজ ঘরে তুললো শ্রীলঙ্কা। দিমুথ করুনারত্নে ও লাহিরু থিরিমান্নের জোড়া সেঞ্চুরিতে ৪৯৩ রান করে ইনিংস ঘোষণা করে শ্রীলঙ্কা। জবাবে তামিমের ঝড়ো ৯০ রানের পরেও বেশিদূর এগোয়নি বাংলাদেশের ইনিংস। মাত্র ২৫১ রানে গুটিয়ে যায় বাংলাদেশ।

২৪২ রানে পিছিয়ে থাকলেও বাংলাদেশকে ফলোঅন করায়নি শ্রীলঙ্কা। দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে ৯ উইকেট হারিয়ে ১৯৪ রানে আবারও ইনিংস ঘোষণা করে তাঁরা। বাংলাদেশের লক্ষ্য দাঁড়ায় ৪৩৭ রান।

বিশাল লক্ষ্য তাড়া করে জিততে হলে ইতিহাস গড়তে হতো বাংলাদেশকে। কিন্তু স্পিনিং ট্র্যাকে তাদের জন্য কাজটা কঠিন করে তোলেন লঙ্কান স্পিনাররা। চতুর্থ দিন ৪৮ ওভার ব্যাট করে প্রথম সারির ৫ ব্যাটসম্যান সাজঘরে ফিরে যান। মোটামুটি সবাই শুরু করলেও ইনিংস বড় করতে পারেননি কেউ। ফলে ১৭৭ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে চতুর্থ দিনের খেলা শেষ করে টাইগাররা।

শেষদিনে ব্যাট করতে এসে দুই অপরাজিত ব্যাটসম্যান লিটন দাস ও মেহেদী মিরাজ বেশি কিছু করতে পারেননি। শেষদিনে এক সেশনও টিকতে পারেনি বাংলাদেশ। দিনের তৃতীয় ওভারে জয়াবিক্রমার শিকার হন লিটন। কুমার ধর্মসেনার আউটের সিদ্ধান্ত রিভিউ করেন লিটন, কিন্তু কাজ হয়নি তাতে। আর লিটনের উইকেট নিয়ে শ্রীলঙ্কার হয়ে অভিষেকে সেরা বোলিংয়ের কীর্তি গড়েন এই বাঁহাতি স্পিনার।

শেষদিনের দীর্ঘস্থায়ী জুটিটি হয় মিরাজ ও তাইজুলের মধ্যে। ১১ ওভার ব্যাট করে ২৩ রানের জুটি গড়েন তাঁরা। বল হাতে ধনঞ্জয়া ডি সিলভা এই জুটি ভাঙেন, তাঁর বলে কট বিহাইন্ড হন তাইজুল। ৭০ তম ওভারে ফিরে যান তাসকিন, ৩৩ বলে ৭ রান করে। পরের ওভারে ম্যাচ শেষ করেন শ্রীলঙ্কার সফল বোলার প্রবীন জয়াবিক্রমা। তাঁর বলে প্যাডল সুইপ করতে গিয়ে ক্যাচ দেন মিরাজ, তাঁর সংগ্রহ ৩৯ রান। দুই বল পর আবু জায়েদ এলবিডব্লুর ফাঁদে পড়লে ২২৭ রানে শেষ হয় বাংলাদেশের ইনিংস। ২০৯ রানের বড় ব্যবধানে জয় পায় শ্রীলঙ্কা।

দুই ইনিংস মিলিয়ে ১১ উইকেট নিয়ে ম্যাচসেরা হয়েছেন অভিষিক্ত প্রবীন জয়াবিক্রমা। আর সিরিজসেরার পুরস্কার জিতেছেন শ্রীলঙ্কান অধিনায়ক দিমুথ করুনারত্নে।

Comments

comments

Close
%d bloggers like this: