আজ: ১২ই জুলাই, ২০২০ ইং, রবিবার, ২৮শে আষাঢ়, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২১শে জিলক্বদ, ১৪৪১ হিজরী, রাত ৯:৪৫
সর্বশেষ সংবাদ
জাতীয়, প্রধান সংবাদ, বাংলাদেশ স্বাস্থ্যবিধি মেনে ১ জুন থেকে সারাদেশে চালু হচ্ছে গণপরিবহন ও লঞ্চ

স্বাস্থ্যবিধি মেনে ১ জুন থেকে সারাদেশে চালু হচ্ছে গণপরিবহন ও লঞ্চ


পোস্ট করেছেন: মতপ্রকাশ ডেস্ক | প্রকাশিত হয়েছে: ২৯/০৫/২০২০ , ১০:২২ অপরাহ্ণ | বিভাগ: জাতীয়,প্রধান সংবাদ,বাংলাদেশ


ভাড়া বাড়ানোর শর্তে স্বাস্থ্যবিধি মেনে রোববার থেকে যাত্রীবাহী লঞ্চ ও সোমবার থেকে গণপরিবহন চালানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে মালিক পক্ষ। শুক্রবার (২৯ মে) বিকেলে বিআরটিএ ও বিআইডব্লিউটিএ কর্মকর্তাদের সঙ্গে আলাদা বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত হয়। তবে ভাড়া পুনঃনির্ধারণের বিষয়ে আগামীকাল সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত হবে। ভোক্তা অধিকার সংগঠন ক্যাব বলছেন, বাড়তি ভাড়া যাত্রীদের কাছ থেকে নেয়া যৌক্তিক হবে না।
করোনা পরিস্থিতির কারণে দুই মাসের বেশি সময় ধরে বন্ধ গণপরিবহন। স্বাস্থ্যবিধি মেনে গণপরিবহন চালানো যাবে- সরকারের এমন সিদ্ধান্তের পর বাস মালিক-শ্রমিক নেতাদের সঙ্গে বৈঠকে বসে সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়। বৈঠকে ভিডিও কনফারেন্সর মাধ্যমে যুক্ত হন মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

প্রায় দুই ঘণ্টা বৈঠক শেষে সোমবার থেকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে বাস চালুর সিদ্ধান্ত হয়। তবে বাস মালিকরা ভাড়া বাড়ানোর শর্ত দিয়েছেন। সে বিষয়ে শনিবার চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হবে বলে জানিয়েছেন সড়ক পরিবহন সচিব।
বৈঠক শেষে সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগের সচিব মোঃ নজরুল ইসলাম জানান, বাসের স্বাস্থ্যবিধি ও নিরাপদ দূরত্ব বজায় রাখতে হবে। এজন্য, বাস চলাচলের সময় অন্তত ৩০ ভাগ সিট খালি, বাস স্ট্যান্ডে হাত ধোওয়ার ব্যবস্থা, শ্রমিকদের টানা ডিউটি না করানোর বিষয়ে সিদ্ধান্ত প্রস্তাব দেয়া হয় বৈঠকে। এর ফলে, ভাড়া পুনর্র্নিধারণ করতে হবে। ভাড়া পুনর্র্নিধারণ কমিটি এ বিষয়ে বৈঠক করে ভাড়া ঠিক করবেন। ভাড়া নিয়ে কোনো ধরনের নৈরাজ্য করা যাবে না।

বৈঠকে, টার্মিনাল থেকে বাস ছাড়ার আগে সবাইকে স্যানিটাইজার ব্যবহার করে জীবাণুমুক্ত হয়ে নেয়ার আহ্বান জানানো হয়েছে। টিকিট কাটার সময় বজায় রাখতে হবে নিরাপদ দূরত্ব। এসব মনিটরিংয়ে প্রশাসন ও মালিক সমিতি- উভয়ের টিম থাকবে।

পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগের সচিব আরও বলেন, মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের নির্দেশনায় এক জেলা থেকে আরেক জেলা যাত্রী পরিবহনে নিষেধাজ্ঞার কথা বলা হয়েছে। কিন্তু যে যাত্রী রাজশাহী থেকে ঢাকা আসবেন তার যদি বিভিন্ন জায়গায় পরিবহন বদলানো লাগে সেটা আরও বেশি ঝুঁকিপূর্ণ হবে। তাই স্বাস্থ্যবিধি মেনে ও নির্ধারিত স্টপেজের বাইরে না থেমে এক জেলা থেকে আরেক জেলায় যাত্রী পরিবহনের প্রস্তাব মন্ত্রিপরিষদ বিভাগে প্রেরণ করা হবে বলে।

Comments

comments

Close