আজ: ২০শে জানুয়ারি, ২০২০ ইং, সোমবার, ৬ই মাঘ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ২৪শে জমাদিউল-আউয়াল, ১৪৪১ হিজরী, রাত ১২:৫৭
সর্বশেষ সংবাদ
অপরাধ, জেলা সংবাদ চেয়ারম্যান পুত্রের অপহরনের হাত থেকে অল্পের জন্য রক্ষা পেল স্কুলছাত্রী

চেয়ারম্যান পুত্রের অপহরনের হাত থেকে অল্পের জন্য রক্ষা পেল স্কুলছাত্রী


পোস্ট করেছেন: মতপ্রকাশ ডেস্ক | প্রকাশিত হয়েছে: ০৫/১২/২০১৯ , ৬:২৬ অপরাহ্ণ | বিভাগ: অপরাধ,জেলা সংবাদ


মোঃ সবুজ সরকার সৌরভ,ঘাটাইল (টাঙ্গাইল):  টাঙ্গাইলের ঘাটাইলে এক স্কুল ছাত্রীকে অপহরনের চেষ্টা করা হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে বৃহস্পতিবার দুপুর  ১টার দিকে ঘাটাইল উপজেলার সাগরদিঘীতে । অপহরনের কবলে পড়া মেয়েটি সাগরদিঘী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ৬ষ্ঠ শ্রেনীর ছাত্রী। জানা গেছে, সাগরদিঘী ইউপি চেয়ারম্যান হেকমত শিকদারের ছেলে আপন (১৪) একটি সাদা রঙের এক্স ফিল্ডার প্রাইভেট কার (নং-ঢাকা মেট্রো-চ ২২৬৫২২) নিয়ে স্কুল ছাত্রীকে অপহরণের চেষ্টা করে। ওই স্কুল ছাত্রী সাগরদিঘী বেতুয়াপাড়া গ্রামের মুনছুর আলীর মেয়ে ।

স্কুল ছাত্রী মুন্নি  আক্তার বলেন, দীর্ঘদিন ধরে চেয়ারম্যানের ছেলে আপন আমাকে স্কুলে যাওয়ার পথে নানাভাবে উত্যক্ত  করে আসছে। বৃহস্পতিবার দুপুর সাড়ে বারোটার দিকে আমি বাড়ি থেকে বের হয়ে স্থানীয় বিট অফিসের সামনে সেগুন বাগানের কাছে গেলে আমার পথরোধ করে । পরে জামানের দোকানের সামনে গেলে আমাকে গাড়িতে উঠতে বলে। দৌড়ে  আমি স্কুল গেইট পর্যন্ত গেলে আপনসহ আরো কয়েক জন আমার পথরোধ করে আমাকে জোর  করে গাড়িতে তুলে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। এতে আমার চিৎকার শুনে স্কুলের শিক্ষকসহ স্থানীয়রা এসে আমাকে উদ্ধার করে। পরে উত্তেজিত জনতার তোপের মুখে তারা পালিয়ে যায়।
ওই বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক সালমা খানম ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, সকালের পরীক্ষা শেষ হওয়ার পর ১টার দিকে হাউ মাউ কান্নার শব্দ শুনে স্কুল গেটে বেরিয়ে দেখি অপহরণকারীরা আমার স্কুলের ছাত্রী মুন্নি আক্তারকে একটি গাড়ীতে তুলে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করছে। পরে স্থানিয়দের সহযোগিতায় তাকে উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় স্কুলের সকল শিক্ষার্থী এবং অভিভাবকরা সঙ্কিত হয়ে পরেছে। ঘটনাটি তাৎক্ষণিকভাবে ঘাটাইল ইউএনওকে জানানো হয়। জানতে আইলে ইউএনও মোহাম্মদ কামরুল ইসলাম বলেন, সাগরদিঘিতে একটা ঘটনা ঘটেছে শুনেছি। তবে কি ঘটনা তা আমার জানা নাই। এ ঘটনায় থানায় মামলা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

Comments

comments

Close