আজ: ২৬শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, মঙ্গলবার, ১০ই কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২০শে রবিউল আউয়াল, ১৪৪৩ হিজরি, বিকাল ৫:৫৭
সর্বশেষ সংবাদ
অপরাধ, রাজধানী জুড়ে পুলিশের তালিকাভুক্ত শীর্ষ মাদকব্যবসায়ী সেলিম বাহিনীর বেপারয়া তান্ডবে অতিষ্ঠ শেখেরটেকবাসী

পুলিশের তালিকাভুক্ত শীর্ষ মাদকব্যবসায়ী সেলিম বাহিনীর বেপারয়া তান্ডবে অতিষ্ঠ শেখেরটেকবাসী


পোস্ট করেছেন: মতপ্রকাশ ডেস্ক | প্রকাশিত হয়েছে: ০৯/০৯/২০১৯ , ৭:২৫ অপরাহ্ণ | বিভাগ: অপরাধ,রাজধানী জুড়ে


রাজধানীর আদাবর থানা ছাত্রলীগের পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক মশিউর রহমান মশু হত্যার আসামী সেলিম আহমেদ জীবন ওরফে কসাই সেলিম ওরফে বিয়ার সেলিম  ও তার সন্ত্রাসী বাহিনীর নিত্য অত্যাচার এবং বেপরোয়া তাণ্ডবে অতিষ্ঠ হয়ে উঠেছে এলাকাবাসী ।

তারা এলাকার নিরীহ জনতার উপর একের পর এক অন্যায় অত্যাচারের ষ্টিম রোলার চালাচ্ছে বলে এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়। চিহ্নিত দূধর্ষ সন্ত্রাসী সেলিম আহমেদ জীবন আদাবর  থানাধীন শেখেরটেক  এলাকার শামসু মৃধা ওরফে কসাই শামসুর ছেলে  । ।   থানার সন্ত্রাসী তালিকায় নাম থাকার পরও সে বীরদর্পে চলাফেরা করে ।   ছিনতাই, ডাকাতি, মোবাইলে হুমকি, অপহরণ করে মুক্তিপণ আদায়কে  নিত্যনৈমিত্তিক ঘটনায় পরিণত করেছে এই সেলিম  । ২৮ মে, ২০১৮ তে জাতীয় দৈনিক পত্রিকা দৈনিক ইত্তেফাকে প্রকাশিত ‘রাজধানীতে শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী ১৩৮৪ জন’ শীর্ষক সংবাদে ৯৬৯নং তালিকায় রয়েছে সেলিম আহমেদ জীবন  ওরফে কসাই সেলিম ওরফে বিয়ার সেলিম এর নাম ।

মাদক বিক্রি,ভুমিদস্যুতা ও অস্ত্র ব্যবসায়ী হিসেবেও ব্যাপক পরিচিতি রয়েছে সন্ত্রাসী সেলিমের । জানা যায় , বিগত ২০১৭ ইং সালের ৩রা সেপ্টেম্বর রোববার রাত সাড়ে ১০টার দিকে শেখেরটেক ১০ নম্বর সড়কে সেলিম বাহিনীর হামলায়  মাথায় ইট ও রডের আঘাতে খুন হন ছাত্রলীগ নেতা মশিউর রহমান মশু। সে সময় নিহত মশিউরের বাবা জুলহাস ব্যাপারী আটজনের নাম উল্লেখ করে এবং অজ্ঞাত আরও কয়েকজনকে আসামি করে আদাবর থানায় একটি হত্যা মামলা করেন। মামলার  আসামিরা হলেন  সেলিম আহমেদ জীবন  ওরফে কসাই সেলিম ওরফে বিয়ার সেলিম,  মনোয়ার হোসেন জীবন ওরফে লেদু হাসান, মোল্লা স্বপন,  সাগর, সাঈদ ওরফে পিচ্চি সাঈদ, ফরহাদ ও মো. হৃদয়। এ মামলায় আসামীরা গ্রেফতার হয়ে আদালতের মাধ্যমে জামিনে বেড়িয়ে আসে । এরপর থেকেই বিভিন্নভাবে এলাকায় আধিপত্য বিস্তার সহ মাদক,  ছিনতাই ও ভূমি দখলে লিপ্ত হয় ।

ছাত্রলীগ নেতা মশু হত্যা মামলার আরেক আসামী ও সেলিমের সহযোগী     মনোয়ার হোসেন জীবন ওরফে লেদু হাসান আদাবর থানা যুবদলের যুগ্ম আহ্বায়ক । সে ২০১০ সালে ৪৩ নম্বর ওয়ার্ডের ছাত্রলীগের  সাধারণ সম্পাদক ওহেদুজ্জামান রুমী হত্যামামলার চার্জশিটভুক্ত আসামি। আরেক আসামী  মোল্লা স্বপনও এই মামলার চার্জশিটভুক্ত আসামি। এছাড়া ২০০৩ সালে ঢাকা মহানগর উত্তর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক এস আর পলাশ হত্যায় যে মামলা হয় সেই মামলার চার্জশিটেও লেদু হাসানের নাম আছে।

বর্তমানে  সেলিম আহমেদ জীবন  ওরফে কসাই সেলিম ওরফে বিয়ার সেলিম তার ভাগ্নে মিরাজ, শরীফ ,  ইরফান, সমীর , রেহান, বিজয় ও জুয়েলের মাধ্যমে এলাকায় ইয়াবার ব্যবসা নিয়ন্ত্রণ করছে বলে অভিযোগ রয়েছে। ইতোপূর্বে র‍্যাবের অভিযানে সেলিমের স্ত্রী লিপি আক্তার বিদেশি মদ ও বিয়ার সহ গ্রেফতার হয়েছিলেন । চিহ্নিত  সন্ত্রাসী ও বহু মামলার আসামী সেলিম গংদেরকে গ্রেফতার করে উপযুক্ত শাস্তি প্রদানে পুলিশ সুপার ও র‍্যাব-২ এর  সদয় হস্তক্ষেপ দাবী করেছেন এলাকাবাসী ।

 

 

 

 

Comments

comments

Close
%d bloggers like this: