আজ: ২০শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, বুধবার, ৪ঠা কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৪ই রবিউল আউয়াল, ১৪৪৩ হিজরি, রাত ১২:০৮
সর্বশেষ সংবাদ
আইন ও বিচার, প্রধান সংবাদ মিন্নির স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি প্রত্যাহারের আবেদন গ্রহণ করেছে আদালত

মিন্নির স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি প্রত্যাহারের আবেদন গ্রহণ করেছে আদালত


পোস্ট করেছেন: মতপ্রকাশ ডেস্ক | প্রকাশিত হয়েছে: ৩১/০৭/২০১৯ , ৭:৫১ অপরাহ্ণ | বিভাগ: আইন ও বিচার,প্রধান সংবাদ


বরগুনায় শাহনেওয়াজ রিফাত শরীফ হত্যা মামলার প্রত্যক্ষদর্শী প্রধান স্বাক্ষী থেকে আসামি হওয়া স্ত্রী আয়শা সিদ্দিকা মিন্নির স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি প্রত্যাহারের আবেদন গ্রহণ করেছে আদালত।

বরগুনা জেলা কারাগার কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে আয়শা সিদ্দিকা মিন্নি তার স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি প্রত্যাহারের জন্য মঙ্গলবার বরগুনার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ সিরাজুল ইসলাম গাজীর আদালতে আবেদন করেন। বুধবার (৩১-৭-১৯) সকাল সাড়ে ১০টার দিকে আদালত আবেদনপত্র গ্রহণ করেছে। মিন্নির পক্ষের আইনজীবী মাহাবুবুল বারী আসলাম এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

বরগুনার জেল সুপার মো. আনোয়ার হোসেন জানান, আয়শা সিদ্দিকা মিন্নি মঙ্গলবার তার কাছে ১৬৪ ধারায় দেওয়া স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি প্রত্যাহারের জন্য আবেদন করেন। তিনি আবেদন গ্রহণ করে মঙ্গলবারই বরগুনার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ সিরাজুল ইসলাম গাজীর আদালতে তা পৌঁছে দেন।

বরগুনা মিন্নির আইনজীবী মাহাবুবুল বারী আসলাম জানান, মঙ্গলবার বরগুনা জেলা ও দায়রা জজ আদালতে আয়শা সিদ্দিকা মিন্নির জামিন শুনানি হয়েছে। জেলা ও দায়রা জজ মো. আছাদুজ্জামান মামলার সকল নথি তলব করেছেন। জেলা ও দায়রা জজ আদালত থেকে নথি সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে এলেই মিন্নির স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি প্রতাহারের আবেদনের শুনানির তারিখ ধার্য করা হবে। জেলা ও দায়রা জজ মিন্নির জামিন নামঞ্জুর করেছেন।

আয়শা সিদ্দিকা মিন্নিকে গত ১৬ জুলাই সকাল পৌনে দশটার দিকে জিজ্ঞাসাবাদের কথা বলে পুলিশ লাইনে নিয়ে আসা হয়। ওইদিন রাত ৯টার দিকে তাকে গ্রেফতার দেখিয়ে বরগুনা কারাগারে পাঠানো হয়। পরের দিন বিকেল সোয়া তিনটার দিকে কারাগার থেকে বরগুনার জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম মোহাম্মদ সিরাজুল ইসলাম গাজীর আদালতে হাজির করে মিন্নিকে ৫ দিনের রিমান্ডে নেয় পুলিশ।

রিমান্ডে নিয়ে ৪৮ ঘন্টা পরেই ১৯ জুলাই বেলা ২ টার দিকে মিন্নিকে বরগুনার জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম মোহাম্মদ সিরাজুল ইসলাম গাজীর আদালতে হাজির করে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি নেওয়া হয়। ওইদিন রাত সাড়ে ৭ টার দিকে মিন্নিকে বরগুনা কারাগারে পাঠানো হয়েছে। সেই থেকে মিন্নি বরগুনা কারাগারে রয়েছেন।

Comments

comments

Close
%d bloggers like this: