আজ: ১১ই এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, রবিবার, ২৮শে চৈত্র, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২৯শে শাবান, ১৪৪২ হিজরি, রাত ৩:২২
সর্বশেষ সংবাদ
জীবন ধারা গায়ে হলুদের গহনায় ভিন্নতা

গায়ে হলুদের গহনায় ভিন্নতা


পোস্ট করেছেন: মতপ্রকাশ ডেস্ক | প্রকাশিত হয়েছে: ২২/০৬/২০১৯ , ১২:০২ পূর্বাহ্ণ | বিভাগ: জীবন ধারা


গায়ে হলুদের জন্য সুন্দর একটা শাড়ি কেনা হলেই কি সব সাজসজ্জা শেষ? মোটেই তা নয়। আপনার সুন্দর শাড়িখানা আপনার দেহের জড়াবেন আর বাকি অঙ্গ কি করবেন? চিন্তা হচ্ছে? চিন্তার কিছুই নেই। এটা আমরা সবাই জানি গায়ে হলুদে যেমন একটি সুন্দর শাড়ি চাই, তেমনি সেই শাড়ির সঙ্গে মিলিয়ে সুন্দর গহনা। কারণ, একমাত্র গহনাই আপনার চেহারা ও সারা দেহের সৌন্দর্য বাড়িয়ে দেবে।

একটা সময় ছিল যখন গায়ে হলুদের গহনা মানেই হচ্ছে গাঁদা ফুলের মালা। সঙ্গে হয়তো দু’একটি গোলাপ ফুল দেওয়া হতো একটু ভিন্নতা আনার জন্য। তারপর এলো রজনীগন্ধার গহনা, কাঠবেলির গহনা। কিন্তু এখন গায়ে হলুদের গহনায় এসেছে অনেক ধরনের ডিজাইন ও ভিন্নতা। যা দেখতে অনেক সুন্দর ও আকর্ষণীয়।
এখন অনেকেই তাদের শাড়ির সঙ্গে মিলিয়ে নিজের মতো করে গহনা তৈরি করে নেয়। সেটা হতে পারে তাজা ফুল দিয়ে। অথবা আর্টিফিশিয়াল ফুল, পুঁথি, ক্রিস্টাল, অথবা এন্টিক লহরের গহনা দিয়ে। আবার আপনি চাইলে হলুদের দিনেও ফুল বা পুঁথির গহনার বদলে গোল্ড, সিলভার বা মেটালের গহনাও পরতে পারেন। এতে আপনার হলুদের সাজেও আসবে ভিন্নতা।
হলুদের গহনা মানেই শুধু মাথা, কান ও গলার গহনা না। এর সঙ্গে মিলিয়ে আপনি বাহুর জন্য নিতে পারেন সুন্দর এক জোড়া বাজু। সেটা ফুল বা মেটালের হতে পারে।
হাতের জন্য নিতে পারেন পাঞ্জা, পাঞ্জায় একটি আঙ্গুলের আংটি অথবা পাঁচ আঙ্গুলের থাকতে পারে। তবে এ ক্ষেত্রে শুধু বালায় ভারী কাজ থাকতে পারে। আর আঙ্গুলের জন্য হালকা কাজ।
কোমরের জন্য নিতে পারেন সুন্দর ফুলের বিছা বা কোমর বন্ধনী। তবে আপনার বিছার ডিজাইন হতে হবে আপনার ফিগারের সঙ্গে মানানসই। ডিজাইন হতে পারে চিকন কিংবা মোটা। ফুলের অথবা মেটালের।

মাথার খোঁপা কিংবা বেণীটা সাজিয়ে নিতে পারেন সুন্দর মানানসই ফুলের মালা দিয়ে। যদি চুল বড় হয় তাহলে বেণীতেই বেশি ভালো লাগবে। আর ছোট চুলে খোঁপা। আর যদি ছোট চুলে বড় বেণী করতে চান তাহলে ফুলের সঙ্গে পরচুলার সাহায্য নিতে পারেন।

এত সব করলেন আর পায়ের কথা ভুলেই গেলেন? সেটা কীভাবে হয়? পায়ের কথা ভুললে চলবে না। তাই পায়ের জন্য নিতে পারেন এক জোড়া ফুলের নূপুর। সেটা চিকন হতে পারে কিংবা মোটা। হলুদের সময় পায়ে নূপুর থাকলে পায়ে জুতা, স্যান্ডেল না থাকলেই বেশি ভালো লাগবে।

Comments

comments

Close
%d bloggers like this: