আজ: ১৮ই মে, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, মঙ্গলবার, ৪ঠা জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ৬ই শাওয়াল, ১৪৪২ হিজরি, রাত ১০:১১
সর্বশেষ সংবাদ
জেলা সংবাদ দুর্নীতির বিষয়ে কাউকে ছাড় দেয়া হবে না : বৃষকেতু চাকমা

দুর্নীতির বিষয়ে কাউকে ছাড় দেয়া হবে না : বৃষকেতু চাকমা


পোস্ট করেছেন: মতপ্রকাশ ডেস্ক | প্রকাশিত হয়েছে: ২৫/০২/২০১৯ , ৩:৪০ অপরাহ্ণ | বিভাগ: জেলা সংবাদ


মোঃ নুরুল আমিন,রাঙ্গামাটি:

‘দুর্নীতির বিষয়ে কাউকে ছাড় দেয়া হবেনা,  স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা এবং জনসেবামূলক মনোভাব নিয়ে সরকারের উন্নয়ন কর্মকান্ড বাস্তবায়ন করতে সকল প্রতিষ্ঠান প্রধানদের কাজ করতে হবে’ ।

সোমবার (২৫ ফেব্রুয়ারি) সকালে রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের আয়োজনে জেলা উন্নয়ন কমিটির মাসিক সভায় জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান বৃষকেতু চাকমা এসব কথা বলেন।
এসময় সভায় পরিষদের মুখ্য নির্বাহী কর্মকর্তা ছাদেক আহমদের পরিচালনায় বক্তব্য রাখেন, গণপূর্ত বিভাগের উপ বিভাগীয় প্রকৌশলী জহির রায়হান, এলজিইডি সহকারী প্রকৌশলী মোঃ রিয়াদ উল নবী, রাঙ্গামাটি সরকারী কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর মোঃ মঈনউদ্দীন, ইসলামী ফাউন্ডেশনের উপ-পরিচালক মোঃ গোলাম উদ্দীন, ব্র্যাক এর জেলা প্রতিনিধি সমীর কুমার কুন্ড প্রমূখ।


জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বৃষ কেতু চাকমা বলেন, বর্তমান সরকার পার্বত্য অঞ্চলের  উন্নয়নে বিভিন্ন প্রকল্প হাতে নিয়েছে। এই প্রকল্পগুলো সঠিকভাবে বাস্তবায়ন করতে রাঙ্গামাটি জেলা পরিষদের হস্তান্তরিত বিভাগ ও অন্যান্য সরকারি অফিসকে অনুরোধ জানান। তিনি বেসরকারী উন্নয়ন সংস্থা ব্র্যাকের প্রশংসা করে বলেন, পার্বত্য অঞ্চলে  ম্যালেরিয়া নিয়ন্ত্রণে ব্র্যাক ভালো ভূমিকা রেখেছে। তাদের কীটনাশক যুক্ত মশারী এই অঞ্চলের ম্যালেরিয়া নিয়ন্ত্রণে অনেকাংশে সফল হয়েছে। তিনি ব্র্যাকসহ অন্যান্য এনজিও সংস্থাগুলোকে সুদের হার আরো কমানোর অনুরোধ এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দুর্নীতি নির্মূলে জিরো টলারেন্স বাস্তবায়ন করতে রাঙ্গামাটি জেলার বিভিন্ন সরকারি প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তাদের এগিয়ে আসার আহ্বানও জানিয়েছেন  ।
সভায় রাঙ্গামাটি সরকারী কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর মোঃ মঈনউদ্দীন বলেন, বর্তমানে কলেজে প্রায় ১০হাজার শিক্ষার্থী রয়েছে। বিগত ১০-১২ বছর আগে ছাত্রী হোস্টেল নির্মাণ করা হলেও তা চালু করা সম্ভব হয়নি। হোস্টেলটি চালু হলে দূর দূরান্ত থেকে আগত শিক্ষার্থীরা স্বল্প খরচে থাকার সুযোগ পাবে। তাই এ হোস্টেলটি চালু করার জন্য পরিষদের হস্তক্ষেপ কামনা করেন।
গণপূর্ত বিভাগের উপ বিভাগীয় প্রকৌশলী জহির রায়হান বলেন, রাজস্থলী ফায়ার ষ্টেশন নির্মাণ কাজ দ্রুত শুরু হবে। অন্যদিকে কিছু গাছ অপসারণ করা হলে রাঙ্গামাটি জেনারেল হাসপাতালের ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট ভবনের কাজও শুরু করা হবে। গাছ অপসারণের বিষয়ে বন বিভাগকে পত্র প্রেরণ করা হয়েছে।

এলজিইডি সহকারী প্রকৌশলী মোঃ রিয়াদ উল নবী জানান, রাঙ্গামাটির আসামবস্তী-কাপ্তাই সড়ক মেরামত ও সংস্কারের জন্য ডিজাইন প্রস্তুত করা হচ্ছে। ডিজাইন হলে প্রকল্পের কাজ শুরু করা হবে।
ইসলামী ফাউন্ডেশনের উপ-পরিচালক মোঃ গোলাম উদ্দীন জানান, জেলার ১০টি উপজেলায় মডেল মসজিদ নির্মাণে কাজ চলছে। এছাড়া বিভিন্ন উপজেলার ৬২৯জন শিক্ষিত বেকার যুবককে গণশিক্ষা কার্যক্রম পরিচালনার জন্য নিয়োগ দেওয়া হয়েছে।
ব্র্যাক এর জেলা প্রতিনিধি সমীর কুমার কুন্ড জানান, স্বাস্থ্য, শিক্ষা, ঋণ প্রদান, দক্ষতা উন্নয়ন ও মানুষের জীবনমান উন্নয়নে ব্র্যাক রাঙ্গামাটিতে কাজ করে যাচ্ছে। তিনি বলেন, ম্যালেরিয়া কার্যক্রমের মধ্যে বিনামূল্যে মশারী বিতরণ ও সচেতনতায় বিরাট ভূমিকা রেখে চলছে এ সংস্থা। এছাড়া সম্প্রতি বরকলে অগ্নিকান্ডে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারদের মাঝে নগদ অর্থ ও মশারী বিতরণ করা হয়েছে।
এছাড়া উত্তর, দক্ষিণ বন বিভাগ, ঝুম নিয়ন্ত্রণ, ইউএসএফ ও পাল্পউড বাগান বিভাগের বিভাগীয় বন কর্মকর্তাগণ জানান, বর্তমানে স্থানীয় গাছের চারাগুলো রোপন ও চারা কলম করা হচ্ছে। আগামী বর্ষা মৌসুমে চারাগুলো বিতরণ করা হবে।

সভায় উপস্থিত অন্যান্য বিভাগীয় কর্মকর্তাগণ স্ব স্ব বিভাগের কার্যক্রম উপস্থাপন করেন।

Comments

comments

Close
%d bloggers like this: